রাঙামাটিতে গ্রেফতাকৃত ধর্ষক আ’লীগ নেতাকে দল থেকে বহিস্কার ও ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন

0
.

রাঙামাটি প্রতিনিধি:
রাঙামাটির বরকলের ভূষণছড়া এলাকায় ব্ল্যাক মেইল করে দুই সন্তানের জননীকে দিনের পর দিন ধর্ষনের মূল হোতা সাবেক ইউপি মেম্বার আলমগীরকে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগ থেকে বহিস্কারসহ তার ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন করেছে বরকল উপজেলার জনসাধারণ।

শনিবার রাঙামাটিস্থ জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে অনুষ্ঠিত এই মানববন্ধনে ভূষণছড়ার বাসিন্দাদের পাশাপাশি বরকল উপজেলা ছাত্রলীগ ও আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা অংশগ্রহণ করে।

মানববন্ধনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নুর নবী পাঠান, আওয়ামীলীগ নেতা মনির হোসেন, নারী নেত্রী মনিকা আক্তার, সায়েরা, রওশন আরা বেগম, যুবলীগ নেতা এমদাদুল হক মিলন, ছাত্রলীগ নেতা মোঃ রহিম, হযরত প্রমুখ। মানববন্ধনে সংহতি প্রকাশ করে মুঠোফোনের মাধ্যমে বক্তব্য দিয়ে অভিযুক্ত ধর্ষকের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন পার্বত্য চট্টগ্রামের নারী নেত্রী টুকু তালুকদার।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে বিবাহিত নারীকে ব্ল্যাক মেইল করে জোরপূর্বক ধর্ষনের ছবি ও ভিডিও ধারন করে সেগুলো ইন্টারনেটে ছেড়ে দেওয়ার হুমকি দিয়ে টাকা দাবিসহ দিনের পর দিন ধর্ষন করে আসছিলো ভূষণছড়া বরকল উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতা ও ভূষণছড়া ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার আলমগীর ওরফে আলমগীর মেম্বার। ক্ষমতাসীনদলের প্রভাব খাটিয়ে আলমগীর মেম্বার দিনের পর দিন এই ধরনের একাধিক নারী কেলেংকারির ঘটনা ঘটালেও তার বিরুদ্ধে মুখ খোলার সাহস পেতোনা ভূক্তভোগীরা।

অবশেষে এক ভূক্তভোগীকে ব্ল্যাকমেইল করে আবাসিক হোটেলে নিয়ে আবারো ধর্ষণের সময় শুক্রবার বিকেলে স্থানীয় জনতা অভিযুক্ত আলমগীর মেম্বারকে হাতে-নাতে ধরে পুলিশে সোর্পদ করে। এসময় কোতয়ালী থানা পুলিশ তাকের গ্রেফতারের পাশাপাশি ভিকটিমকে উদ্ধার করে রাঙামাটি জেনারেল হাসপাতালে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করে।

রাঙামাটি কোতয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ কবির হোসেন জানিয়েছেন, আমরা গ্রেফতারকৃত অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ভিকটিমের লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে ধর্ষণ আইনের ৯ এর (১) এবং পর্নোগ্রাফি আইনের ৮ এর (১) এবং ৮ এর (২) ধারায় মামলা দায়ের করেছি। যাহার মামলা নাম্বার-২১, তারিখ-১৬/১০/২০২০ইং।

কোন মন্তব্য নেই