চবি ক্যাম্পাসে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন রাষ্ট্রবিজ্ঞানী ড. হাসান মোহাম্মদ

0
.

বিশিষ্ট রাষ্ট্রবিজ্ঞানী  চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজনীতি বিজ্ঞান বিভাগের সাবেক সভাপতি অধ্যাপক ড. হাসান মোহাম্মদ (৬৮) ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

আজ রবিবার (১১ এপ্রিল) বিকেল ৩টার দিকে নগরীর পার্কভিউ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

আজ রবিবার রাত ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের পাশে দ্বিতীয় জানাযা শেষে সাবেক উপাচার্য এআর মল্লিকের কবরের পাশে তাঁকে দাফন করা হয়। এর আগে বাদে মাগরিবনগরীর চান্দগাঁও থানার বহদ্দারহাট কাঁচা বাজারে পাশে নিউ চান্দগাঁও মসজিদে সামনে তাঁর প্রথম জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়।

ড. হাসান মোহাম্মদের বড় ছেলে ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষক ড. ফুয়াদ হাসান বলেন, আমার বাবা দুপুর তিনটার দিকে আমাদের ছেড়ে চলে গেছেন। ওনার শেষ ইচ্ছা ছিল সাবেক উপাচার্য ড. এআর মল্লিকের কবরের পাশে যেন দাফন করা হয়।

গত ৪ এপ্রিল সকালে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় তাকে চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে বিকালে আইসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। এরপর সেখান থেকে পার্কভিউ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজনীতি বিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ও বর্তমান চেয়ারম্যান ডক্টর হাসান মােহাম্মদ ১৯৫৪ সালে সন্দ্বীপ উপজিলার সাতঘড়িয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা মাওলানা সৈয়দ আহমদ (মরহুম) একজন বিশিষ্ট আলিম, শিক্ষাবিদ ও লেখক ছিলেন। ড. হাসানের শৈশবেই তাঁর মাতা শহীদা বেগম পরলােক গমন করেন। বাংলাদেশ : ধর্ম, সমাজ ও রাজনীতি’ ছাড়াও ড. হাসান রচিত ও সম্পাদিত বেশ ক’টি গ্রন্থ ইতােমধ্যে প্রকাশিত হয়েছে।

প্রকাশের অপেক্ষায় রয়েছে আরও কয়েকটি গ্রন্থ। তিনি বেশ কটি সাময়িকী সম্পাদনা করেছেন (ড. হাসানের সংক্ষিপ্ত প্রকাশনা তালিকা এ গ্রন্থেও সংযােজিত রয়েছে)। প্রফেসর হাসান মােহাম্মদ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের সহ-সভাপতি এবং এ. এফ. রহমান হলের প্রভােষ্ট হিসেবেও বর্তমানে দায়িত্ব পালন করছেন। বাংলাদেশের বিশ্ববিদ্যালয় কলেজসমূহের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিষয়ের শিক্ষকদের জাতীয় প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ রাষ্ট্রবিজ্ঞান সমিতি’র তিনি ছিলেন সাধারণ সম্পাদক।

ড. হাসান মােহাম্মদ বাংলাদেশ অধ্যয়ন কেন্দ্র’-এর প্রতিষ্ঠাতা নির্বাহী পরিচালক। বাংলাদেশ সংস্কৃতি ফোরাম’-এর প্রতিষ্ঠাতা মহাসচিব। অনেকগুলাে জাতীয় আঞ্চলিক সামাজিক, সাংস্কৃতিক এবং পেশাজীবী সংগঠনের সঙ্গে ড. হাসান সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিলেন। তাঁর উদ্যোগে আয়ােজিত হয়েছে অনেকগুলাে সেমিনার-সিম্পােজিয়াম। বাংলাদেশের বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় তিনি নিয়মিত লিখছেন। গ্রন্থণা, উপস্থাপনা এবং আলােচক হিসেবে বাংলাদেশ বেতার ও টেলিভিশনের বিভিন্ন অনুষ্ঠানেও তিনি অংশগ্রহণ করেছেন।

কোন মন্তব্য নেই