রাঙামাটি ডিসি’র মোবাইল ক্লোনিং করে চেয়ারম্যানদের কাছে চাঁদা দাবি

0
.

রাঙামাটি জেলা প্রতিনিধি:
প্রযুক্তি মাধ্যমে মোবাইল ফোন নম্বর ক্লোনিং করে রাঙামাটির জেলা প্রশাসকের নামে চাঁদা দাবি করছে প্রতারক চক্র।

সোমবার (৩ মে) জেলা প্রশাসকের ব্যবহৃত সরকারি মোবাইল ফোনের টেলিটক নম্বর থেকে বেশ কয়েকজন উপজেলা চেয়ারম্যানের কাছে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছে চক্রটি এমন অভিযোগ করেছেন স্বয়ং জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান।

জানাগেছে, কয়েকজন চেয়ারম্যান ব্যক্তিগতভাবে জেলা প্রশাসক মোঃ মিজানুর রহমানকে বিষয়টি অবহিত করলে ফোন নম্বর ক্লোনিংয়ের শিকার হওয়ার ব্যাপারটি উঠে আসে।

জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান পাঠক ডট নিউজ প্রতিবেদককে জানিয়েছেন, রাঙামাটির সদর উপজেলা,কাউখালী, বিলাইছড়ি, জুড়াছড়িসহ কয়েকটি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যানদের কাছে আমার ব্যবহৃত সরকারি মুঠোফোন নাম্বার ০১৫৫০৬০১৪০১ থেকে ফোন করে প্রতিজনের কাছ থেকে দুই লাখ টাকা করে চাওয়া হয়। সদর উপজেলার চেয়ারম্যান বিষয়টি আমাকে অবহিত করলে আমি বিস্মিত হই এবং সাথে সাথেই এটি প্রতারকদের কাজ বলে সকলকে সতর্ক করা হয়।

জেলা প্রশাসক জানান, ইতিমধ্যেই রাঙামাটির পুলিশ সুপারকে বিষয়টি অবহত করে একটি লিখিত অভিযোগও দেওয়া হয়। এছাড়াও প্রতারকদের চিহ্নিত করতে প্রযুক্তিগত সকল ধরনের কার্যক্রম চলমান আছে বলেও জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান।

এদিকে এর আগেও বিগত ২০১৮ সালের ২১শে জুন রাঙামাটির তৎকালীন জেলা প্রশাসক মানুনুর রশিদ এর দায়িত্বকালীন সময়েও একই কায়দায় প্রতারকচক্র সরকারী নম্বর ক্লোনিং করে বিভিন্ন জনের নিকট চাঁদা দাবি করেছিলো। সে সময় জেলা প্রশাসক তার ডিসি রাঙামাটি ফেসবুক আইডিতে ষ্ট্যাটাসের মাধ্যমে এই ধরনের কার্যক্রমের সাথে কোনোভাবেই সম্পৃক্ত না হওয়ার পাশাপাশি প্রতারকদের বিরুদ্ধে কোনো তথ্য পেলে সাথে সাথে জেলা প্রশাসনকে অবহিত করার আহবান জানিয়েছিলেন।

৩রা মে সোমবারও একইভাবে সীম ক্লোনিং করে প্রতারক চক্রটি চাঁদা দাবি করছে। বিষয়টি অবহিত হওয়ার পরপরই ফেসবুক আইডি থেকে এই ধরনের ফাঁদে পা না দিতে সংশ্লিষ্ট্য সকলের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছে রাঙামাটি জেলাপ্রশাসন কর্তৃপক্ষ।

কোন মন্তব্য নেই