চট্টগ্রামে বাড়তি ভাড়া জন্য যাত্রীর মাথা ফাটালেন বাস হেলপার (ভিডিও)

0
.

৫ টাকার ভাড়া ১০ দাবী করেছিল বাস হেলপার।  কিন্তু বাড়তি ভাড়া দিতে অস্বিকার করায় বাক বিতন্ডার এক পর্যায়ে ওই যাত্রীকে মারধর করে মাথা ফাটিয়ে দিয়েছে হেলপার।

গতকাল রবিবার (১৩ জুন) দুপুরে নগরীর বহদ্দারহাট মোড়ে এ ঘটনার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয় এ ঘটনার একটি ভিডিও।

জানাগেছে,

নগরীর নিউ মার্কেট থেকে কালুঘাটগামী ১নং সিটিবাসে (গাড়ির নাম্বার চট্টমেট্রো চ ১১-২৩১৪) বড় গ্যারেজ এলাকা থেকে এক যাত্রী উঠেন বহদ্দারহাট মোড়ে যাবেন। যার দূরত্ব আনুমানিক ১ কিলোমিটার।

সাধারণ সময়ে ভাড়া ৫ টাকা। কিন্তু গাড়ির হেলপার ১০ টাকা দাবি করেন। তা দিতে অপারগতা প্রকাশ করায় যাত্রীকে মারধর করে মাথা ফাটিয়ে দেন হেলপার।

ভিডিওতে দেখা যায়, এক ব্যক্তি গাড়ির দরজায় মাথায় হাত দিয়ে বসে আছেন। তার মাথা ফেটে রক্ত ঝড়ছে। গাড়ির যাত্রীরা হেলপারকে ধরার চেষ্টা করছেন। গাড়িটি নগরের কালুরঘাট থেকে নিউ মার্কেট (১নম্বর রুট) পর্যন্ত চলাচল করে।

প্রতক্ষ্যদর্শী কয়েকজন জানান,  লোকটি কাছাকাছি দূরত্বেই নেমে গিয়েছিলেন। ৫ টাকা ভাড়া দেওয়ার পর গাড়ির হেলপার তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ শুরু করে। পরে লোকটি গাড়ি থেকে নেমে যাওয়া সময় হেলপার দৌড়ে গিয়ে গাড়ি পরিস্কার করার ব্রাশ দিয়ে তার মাথায় আঘাত করে।

মেহেদি আরও বলেন, প্রায় প্রতিদিনই এই রুটে ভাড়া নিয়ে যাত্রীদের সঙ্গে বাগবিতণ্ডা হয়। ঘটনার দিনও গাড়িতে যাত্রীর সংখ্যা বেশি ছিল। প্রতি সিটে দুইজন করে বসেছে। আবার দাঁড়িয়েও ছিলেন অনেকে। তারপরও তারা দ্বিগুণ ভাড়া আদায় করছিল। সাধারণত ভাড়া ৫ টাকা হলেও সরকারের ৬০ শতাংশ ভাড়া বৃদ্ধিতে ৮ টাকা হওয়ার কথা। কিন্তু এই রুটের প্রতিটি গাড়িতেই দ্বিগুণ ভাড়া নেওয়া হচ্ছে।

বহদ্দারহাট পুলিশ বক্সের দায়িত্বপ্রাপ্ত এসআই অধীর চৌধুরী বলেন, গত পরশু একাধিক ঘটনা ঘটেছে। সবগুলোই ভাড়া সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে। যাত্রীর মাথা ফাটিয়ে দেওয়ার মতো ঘটনা আমার নজরে আসেনি।

কোন মন্তব্য নেই