করোনায় মৃত্যু বেড়ে ২৪ ঘন্টায় ৪৮ জন

0
.

একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু বেড়েছে। এ সময়ে ৪৮ জনের মৃত্যুর কথা জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর, যা গতকাল (শুক্রবার) ছিল ৩৮ জন। তাদের নিয়ে দেশে ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে সরকারি হিসাবে এখন পর্যন্ত মোট মারা গেলেন ২৬ হাজার ৮৮০ জন।

শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, একই সময়ে আগের ২৪ ঘণ্টার তুলনায় করোনায় নতুন শনাক্ত কমেছে। একদিনে করোনায় নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন এক হাজার ৩২৭ জন। তাদের নিয়ে দেশে করোনাতে এখন পর্যন্ত সরকারি হিসাবে মোট শনাক্ত হলেন ১৫ লাখ ২৮ হাজার ৫৪২ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাতে রোগী শনাক্তের হার সাত দশমিক তিন শতাংশ, যা গতকাল ছিল ৮ দশমিক ৬৫ শতাংশ। আর এখন পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৬ দশমিক ৫৮ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৬ দশমিক ৫১ শতাংশ আর শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুহার এক দশমিক ৭৬ শতাংশ।

একদিনে করোনার নমুনা সংগৃহীত হয়েছে ১৮ হাজার ৬৮৩টি আর নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৮ হাজার ৮৬৯টি। স্বাস্থ্য অধিদফতর জানাচ্ছে, দেশে এখন পর্যন্ত করোনার মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৯২ লাখ ২১ হাজার ৬৫৯টি। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা হয়েছে ৬৮ লাখ ১৭ হাজার ১২৬টি আর বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা হয়েছে ২৪ লাখ চার হাজার ৫৩৩টি।

একই সময়ে মারা যাওয়া ৪৮ জনের মধ্যে পুরুষ ২২ জন আর নারী ২৬ জন। তাদের নিয়ে দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মোট পুরুষ মারা গেলেন ১৭ হাজার ৩৩৬ জন আর নারী মারা গেলেন নয় হাজার ৫৪৪ জন।

মারা যাওয়া ৪৮ জনের মধ্যে বয়স বিবেচনায় ৯১ থেকে ১০০ বছরের মধ্যে আছেন একজন, ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে তিনজন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে নয়জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ১৭ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ১৩ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে চারজন আর ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে রয়েছেন একজন।

তাদের মধ্যে ঢাকা বিভাগের আছেন ২২ জন, চট্টগ্রাম বিবাগের ১২ জন, খুলনা ও সিলেট বিভাগের দুইজন করে, বরিশাল ও ময়মনসিংহ বিভাগের একজন করে আর রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের আছেন চারজন করে।

অধিদফতর জানাচ্ছে, মারা যাওয়া ৪৮ জনের মধ্যে সরকারি হাসপাতালে মারা গেছেন ৪৪ জন আর বেসরকারি হাসপাতালে মারা গেছেন চারজন।

কোন মন্তব্য নেই