সীতাকুণ্ডে পুলিশের সাথে কথিত বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

0
.

জেলার সীতাকুণ্ডে পুলিশের সাথে কথিত বন্দুকযুদ্ধে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। আজ শনিবার দিবাগত রাত পৌনে ১টার দিকে উপজেলার গুলিয়াখালী সন্দ্বীপ ফেরী ঘাটে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশের মতে নিহত মাদক ব্যবসায়ীর নাম মো. রিহান প্রকাশ রিহান (২৭)।  সে ৪ নং মুরাদপুর ইউনিয়নের গোলাবাড়িয়া এলাকার মালিউল হকের দ্বিতীয় পুত্র।  তার বড় ভাইয়ের নাম জাহাঙ্গীর (রনি)।

সীতাকুণ্ড থানার ওসি (তদন্ত) মোজাম্মেল হক পাঠক ডট নিউজকে এ ঘটনা নিশ্চিত করেছেন।

ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ নিহত রিহানের ৩ সহযোগীকে গ্রেফতার করেছে। তারা হলো-জাফর, কালা সুমন ও টিটু।

ওসি (তদন্ত) মোজাম্মেল হক জানায়, রাতে মাদক বিরোধী অভিযানে বের হলে মুরাদপুর ইউনিয়নের গুলিয়াখালি সাগরপাড় এলাকায় সন্দ্বীপ ফেরীঘাটের কাছে মাদক ব্যবসায়ীরা পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে তারা গুলিছুঁড়ে।  আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টাগুলি চালায়।  এক পযার্য়ে পালানোর সময় ধাওয়া করে ৩ জনকে আটক করা হয় এবং ঘটনাস্থলে রিহানের লাশ পাওয়া যায়।  নিহত রিহান একজন চিহ্নিত মাদক ব্যবসাযী ও পাচারকারী। তার নামে সীতাকুণ্ড থানায় ৮টি মামলা রয়েছে।

এদিকে নিহত রিহানের বাড়ীর পাশের এক যুবক (নাম পরিচয় প্রকাশে ইচ্ছুক নয়) পাঠক নিউজকে জানায়, সে একজন মাদক সেবী, তার পেশা চুরি ডাকাতি করা।  তেমন কোন বড় অপরাধিও ছিল না।  আওয়ামী লীগের কর্মী হিসেবে এলাকায় পরিচিত।

একবার উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা বাকের ভুঁইয়াকে মারতে ধাওয়া করে আলোচিত হয়েছিল এ রিহান।

তবে রিহানের মৃত্যুতে এলাকার মানুষ খুশি হয়েছে।  এ জন্য তারা সকালে আনন্দ মিছিলও বের করবে বলে সুত্র নিশ্চিত করেছে।

ঘটনা সম্পর্কে এ যুবক জানায় রাত একটা একটু আগে বাড়ির পশ্চিম পার্শ্বে সাগর পাড়ে একটি গুলির শব্দ শুনেছি। কোন বন্দুক যুদ্ধ হয়েছে কিনা জানি না।  পরে শুনলাম রিহান মারা গেছে।

কোন মন্তব্য নেই

একটি মন্তব্য দিন