পুরো পর্দার ফোন ভিভো নেক্স!

0

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে চীনা স্মার্টফোন নির্মাতা ভিভো একটি স্মার্টফোনের নকশা উন্মোচন করে। অ্যাপেক্স নামের এ নকশায় নির্মাতারা সত্যিই প্রায় অসম্ভবকে সম্ভব করে দেখিয়েছে। ভিভো অ্যাপেক্স পরীক্ষামূলক ফোনটির সামনের দিকজুড়ে পুরোটাই ছিল পর্দা (ডিসপ্লে)। বলতে গেলে এটাই প্রথম সম্পূর্ণ ‘বেজেল-লেস ডিসপ্লে’ ফোন। সেই সঙ্গে ফোনের পর্দাতেই রয়েছে (ইন-ডিসপ্লে) আঙুলের ছাপ (ফিঙ্গারপ্রিন্ট) নেওয়ার সেন্সর। এ ধারণা নিয়ে দীর্ঘদিন প্রযুক্তি অঙ্গনে আলোচনা চললেও ভিভোই সবার আগে কাজটি করে দেখিয়েছে। পুরো পর্দার ফোন হিসেবে সবচেয়ে আলোচিত আইফোন টেন এবং শাওমি মি মিক্স—কোনোটারই সামনের অংশের পুরোটা পর্দা নয়। মূলত বাজারে আসা পুরো পর্দার প্রায় সব ফোনের সামনে ক্যামেরা রয়েছে। আর এখানেই বাজিমাত করেছে ভিভো অ্যাপেক্স।

সম্প্রতি চীনের সাংহাইয়ে ভিভো নেক্স স্মার্টফোন দেখায়। এটিই ভিভো অ্যাপেক্স নকশা ফোনের আরও মার্জিত বাজার উপযোগী সংস্করণ। ফোনটির সামনের অংশ পুরোটাই একটি ডিসপ্লে। আর এর সামনের ক্যামেরা রয়েছে ফোনটির ওপরের অংশের ভেতরে। ৮ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরাটিতে মোটর রয়েছে। ক্যামেরা চালু করলেই সামনের ক্যামেরা আপনা থেকেই বাইরে বেরিয়ে আসে। এ ছাড়া ভিভো নেক্সে থাকছে ৬.৫৯ ইঞ্চির সুপার অ্যামোলেড ডিসপ্লে, যা ফোনের ৯১.২৪ শতাংশ জায়গাজুড়ে রয়েছে। এর বেজেল একেবারে নেই বললেই চলে। তাহলে এর ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর আর সামনের স্পিকার কোথায়! এ ক্ষেত্রে ভিভো সর্বাধুনিক স্মার্টফোন প্রযুক্তি ব্যবহার করেছে। ভিভো এক্স ২১ স্মার্টফোনের আদলে নেক্স ফোনটির ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সরও রয়েছে এর ডিসপ্লের নিচের দিকেই। পর্দার মধ্য দিয়েই আঙুলের ছাপ গ্রহণ করতে পারে এই ফোন। আর সামনের স্পিকারের জন্য ভিভো ব্যবহার করেছে স্ক্রিন সাউন্ড-কাস্টিং প্রযুক্তি। এ প্রযুক্তিতে গোটা ডিসপ্লেই একটি স্পিকারে পরিণত হয়েছে। এ প্রযুক্তি এর আগে শাওমির মি মিক্স ফোনে ব্যবহৃত হয়েছিল। মূলত ডিসপ্লেতে কান রাখলেই এর মধ্য দিয়ে শব্দ প্রবাহিত হবে। এ প্রযুক্তির মাধ্যমে প্রচলিত স্পিকার বাতিলের পাশাপাশি শব্দের মানও উন্নত করেছে ভিভো।

নতুনত্ব ছাড়া ভিভো নেক্সে রয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৪৫ প্রসেসর এবং এড্রেনো ৬৩০ গ্রাফিকস প্রসেসর। ফোনটিতে ৮ গিগাবাইট র‍্যামের সঙ্গে রয়েছে ২৫৬ গিগাবাইট ধারণক্ষমতা। পেছনে থাকছে ১২/৫ মেগাপিক্সেলের ডুয়াল ক্যামেরা। তবে এত শক্তিশালী ফোনের জন্য মাত্র ৪০০০ মিলি অ্যামপিয়ারের ব্যাটারি। সূত্র:অনলাইন।

কোন মন্তব্য নেই