সীতাকুণ্ডে ঘরে ঘরে জন্ডিস, নিহত ১, আক্রান্ত ৩০

0
.

জেলার সীতাকুণ্ডের বাড়বকুণ্ড এলাকায় কয়েকটি গ্রামে ছড়িয়ে পড়েছে জন্ডিস। গত এক সপ্তাহ পূর্ব থেকে একের পর এক নারী পুরুষ এ রোগে আক্রান্ত হতে থাকে।

গত শনিবার (২১ জুলাই) রাতে এ রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে কহিনুর আক্তার (৩০) নামে এক নারী।

এছাড়াও চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে একই এলাকার জুয়েলের স্ত্রী পিংকি (১৯) ও মোশারফ (৩৫)।

এদিকে আজ সোমবার (২৩ জুলাই) সকাল থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের একটি মেডিকেল টিম বাড়বকুণ্ডের এসকেএম জুট মিল এলাকায় আলী চৌধুরী পাড়ায় স্বাস্থ্য পরিক্ষা করে ২৯ জন জন্ডিস রোগী সনাক্ত করেছে।  তাদের মধ্যে ১৭জন গুরুতর অসুস্থ্য বলে স্বাস্থ্য কর্মকর্তা নিশ্চিত করেছেন।

.

আজ সোমবার দুপুরে বাড়বকুণ্ড এলাকায় সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, অনেকের চামড়া এবং চোখের সাদা অংশ হলুদ হয়ে গেছে।  ক্ষুধামন্দা, অরুচি, বমি বমি ভাব ও জ্বর দেখা গেছে। অনেকের প্রস্রাব গাঢ় হলুদ বর্ণের হয়ে গেছে বলে জানিয়েছেন।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, এক সপ্তাহ পূর্ব থেকে বাড়বকুণ্ডের আলী চৌধুরীপাড়া ও ডালিপাড়া এলাকার বিভিন্ন বাড়িতে এ রোগে শতাধিক শিশুসহ নারী-পুরুষ আক্রান্ত হন। এর মধ্যে ডালিপাড়া এলাকার এ রোগে আক্রান্ত বাবুলের স্ত্রী কোহিনুর আক্তার মারা যান।

এলাকাবাসী অভিযোগ করে বলেছেন, উক্ত এলাকার পাহাড় পাদদশে একটি ফ্যাক্টরি রয়েছে যেটাতে পুরাতন টায়ার জ্বালিয়ে কালো তেল বানানো হয় সেই ফ্যাক্টরীর কালো ধোঁয়া পুরো এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। এবং মারাত্বক পরিবেশ দুষণ হচ্ছে। একারণে জন্ডিসসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে।

কোন মন্তব্য নেই

একটি মন্তব্য দিন