চট্টগ্রামে ১০ টি স্বর্ণের বারসহ বিমান যাত্রী আটক

0
CTG AIR PORT
চট্টগ্রাম শাহ আমানত বিমান বন্দর থেকে উদ্ধার করা স্বর্ণের বার। ইনসেটে আটক যাত্রী আবু সালেকের পাসপোর্ট।

চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের ১০টি স্বর্ণের বারসহ দুবাই ফেরত আবু সালেক নামে এক যাত্রীকে আটক করা হয়েছে। শনিবার রাতে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের কর্মকর্তারা তাকে আটক করে স্বর্ণের বার গুলো উদ্ধার করেছে।

শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের মহাপরিচালক (ডিজি) ড. মইনুল খান এ খবর নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, রাত ৯টায় এয়ার অ্যারাবিয়ার (ফ্লাইট নম্বর জি-৯-৫২৩) একটি ফ্লাইটে চট্টগ্রাম বিমানবন্দরে অবতরণ করেন। এর আগে তাদের কাছে খবর ছিল। আবু সালেক নামে একজনের কাছে স্বর্ণের বার রয়েছে। সে ভিক্তিতে প্রস্তুত ছিল গোয়েন্দা দল। কিন্তু গোয়েন্দা দলের চোখ এড়িয়ে যাত্রী আবু সালেক গ্রীণ চ্যানেল পায় হয়ে যায়। পরে অনুসন্ধানী দল স্বর্ণ বহন যাত্রী মোহাম্মদ আবু সালেককে গ্রীন চ্যানেলের বাইরে থেকে এনে ফের তল্লাশী করে। এসময় তার পায়ের নিচ থেকে জব্দ হলো স্কচটেপ পেঁচানো ১০টি স্বর্ণবার পাওয়া যায়। পরে গোয়েন্দা দল তাকে আটক করে।

ধৃত সালেক চট্টগ্রামের লোহাগাড়ার নুর আহমেদের ছেলে বলে জানাগেছে।

শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের মহাপরিচালক (ডিজি) ড. মইনুল খান আরো বলেন, আগেই তথ্য ছিল এ বিমানে স্বর্ণ আসছে। তৎপর ও সর্তক শুল্ক কর্মকর্তারা। গ্রীন চ্যানেলে সন্দেহভাজন যাত্রী এবং তার ব্যাগেজে চলে বিশেষ তল্লাশি। এর মাঝেও গোয়েন্দার চোখ ফাঁকি দিয়ে স্বর্ণ নিয়ে গ্রীন চ্যানেল পার হয়ে যান স্বর্ণ চোরাকারবারি সালেক। হাত থেকে ফসকে গেছে এমনটাই ভেবে চিরুনি তল্লাশি শুরু হয়।

উদ্ধার করা ১ কেজি ১৬ গ্রাম ওজনের ১০টি স্বর্ণবারের মূল্য ৪২ লাখ টাকা। আটক সালেকের দুই পা থেকে ৫টি করে স্বর্ণের বার উদ্ধার করা হলেও এসময় সে বলতে থাকেন, ‘আমি এর সাথে জড়িত না। একজন আমাকে বলেছে বিমানবন্দরের বাইরে পৌঁছে দিতে।’ বলেন গোয়েন্দা কর্মকর্তা ড. মইনুল খান।

কোন মন্তব্য নেই