মোরশেদ খানের বাড়ীতে মিলাদুন্নবী মাহফিলে পুলিশের বাধা, ভাঙচুর

0
.

সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মোরশেদ খানের চান্দগাও বাড়ীতে মিলাদুন্নবীর মাহফিল আয়োজনে বাধাদিয়ে পুলিশ পেন্ডল ভাঙচুর করে ট্রাকে তুলে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

প্রতিবছরের মত আগামীকাল শনিবার এই মিলাদুন্নবী (স.) আয়োজন চলছিল। এর আগেই গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১০টা থেকে ৩ টার পর্যন্ত পুলিশ জোর করে খুলে ৪টি ট্রাকে করে এসব সামগ্রী নিয়ে যায়।

মোরশেদ খানের পারিবারিক সুত্রে জানাগেছে, প্রতি বছরের ন্যায় এবারও আগামীকাল ২৪ নভেম্বর শনিবার উত্তর চান্দগাও চৌধুরী পাড়াস্থ মোরশেদ খানের বাড়ীতে মাহফিল ও মেজবানের আয়োজন করা হয়েছিল।

.

নগর বিএনপির সহ দপ্তর সম্পাদক ইদ্রিস আলী জানান, মিলাদুন্নবী উপলক্ষে মোরশেদ খান নিজে চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার ও পুলিশের সংশ্লিষ্ট বিভাগকে অবহিত করে চিঠি দিয়েছিল। কিন্তু চান্দগাও থানা পুলিশ গতকাল রাত ৯ টার সময় মাহফিলস্থলে গিয়ে ডেকোরেশনের লোকজনকে খুঁজে না পেয়ে হারুন ডেকোরেশনের মালিক মোঃ হারুনকে তার বাসা থেকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। তাকে গ্রেফতারের ভয় দেখিয়ে এবং নাজেহাল করে পেন্ডেলের সব পর্দা ও সামিয়ানা খুলে মাহফিলের ব্যানারসহ নিয়ে যায়। পুলিশ বলছে মাহফিল করা যাবেনা। তাই তারা বাধা দিয়েছে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে চান্দগাঁও থানার ওসি আবুল বাশার পাঠক ডট নিউজকে বলেছেন, নির্বচনের তফসিল ঘোষণার পর ইসির নির্দেশনা অনুযায়ী কোনো মাহফিল করা যাবে না।  ইতোমধ্যে নির্বাচন কমিশন সারাদেশে কোনো ধরণের ধমীয় সভা সমাবেশের অনুমতি না দিতে রিটার্নিং অফিসারদের নির্দেশ দিয়েছিলেন।

এই নিষেধাজ্ঞার পরও মোরশেদ খানের বাড়ীতে মাহফিলের কোনো অনুমতি না থাকার বিষয়টি ডেকোরেটার্সের লোকজনকে জানানো হলে তারা নিজ উদ্যোগেই সব খুলে ফেলেছে। পুলিশ কোন ভাঙচুর করেনি।

কোন মন্তব্য নেই

একটি মন্তব্য দিন