নগরীতে কথিত জেহাদী বইসহ জামায়াতের ৩ নারী কর্মী গ্রেফতার

0
.

চট্টগ্রাম মহানগরীর বন্দর থানাধীন কলসী দিঘী রোড এলাকা থেকে জামায়াতে ইসলামী ৩ নারী কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।এসময় তাদের হেফাজত থেকে বিপুল পরিমাণ কথিত জেহাদী বই (ইসলামী বই ও জামায়াতের সাংগঠনিক বই) উদ্ধার করেছে বলে পুলিশ দাবী করেছে।

বুধবার ৫ ডিসেম্বর রাত সোয়া ৯টায় এ অভিযান চালালেও ২৪ ঘন্টা পর আজ বৃহস্পতিবার পুলিশ সংবাদ মাধ্যমকে এ খবর জানায়।

গ্রেফতার ৩ জন হলেন, জেসমিন আক্তার (২৯) স্বামী-বেলাল হোসেন, শাহানারা বেগম (৩৮) স্বামী-মৃত মোঃ ইব্রাহীম ছোট্টু, হামিদা আক্তার (৩০) স্বামী-রহমান হাওলাদার।

নগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (পশ্চিম) এ এ এম হুমায়ুন কবির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, বন্দর থানার কলসী দিঘীর পাড়ে একটি বাসায় জামায়াতে ইসলামী বাংলাদেশ এর বেশ কিছু নারী সদস্য নাশকতার পরিকল্পনার জন্য গোপন বৈঠক করছে এমন তথ্যের ভিক্তিতে ডিবি অভিযান চালিয়ে ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে। এসময় পালিয়ে যায় বেশ কয়েকজন নারী। আটককৃতদের কাছ থেকে বিপুল পরিমাণ জেহাদী বই উদ্ধার করা হয়েছে।

তিনি জানান, আগামী সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে নাশকতা ও রাষ্ট্রীয় স্থাপনায় আঘাত করে দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরির ষড়যন্ত্র হচ্ছিল বলে আমাদের কাছে তথ্য ছিল।

পলাতক আসামীদের সাথে নাশকতার জন্য সংগৃহীত বিভিন্ন প্রকার বিষ্ফোরক ও আগ্নেয়াস্ত্র ছিল বলে আটকতৃতরা পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে। গ্রেফতারকৃত পলাতকরা দীর্ঘদিন যাবত এ এলাকায় অবস্থান করে এবং বিভিন্ন পোশাক কারখানা ও বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে চাকুরীর ছদ্মবেশে সংগঠন পরিচালনা এবং নাশকতা সহ বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকান্ড পরিচালিত করে আসছে।

গ্রেফতারকৃত ৩ জন আসামী ও অজ্ঞাতনামা আসামীদের বিরুদ্ধে বন্দর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

কোন মন্তব্য নেই

একটি মন্তব্য দিন