মুসলিম নির্যাতনের বিরুদ্ধে বিশ্ব সম্প্রদায়ের কার্যকর ভূমিকা চাইঃ আজিজুল হক

0

হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী বলেছেন, বিশ্বব্যাপী ইহুদী-খ্রীষ্টান-কাদিয়ানী গোষ্ঠী মুসলমানদের বিরুদ্ধে ক্রমাগত ষড়যন্ত্র অব্যাহত রেখেছে। চীন, আফগান, কাশ্মীর, ফিলিস্তিন ও মিয়ানমারে মুসলমানেদের রক্ত ঝরা বন্ধ হয়নি। এর মাঝে গত জুমাবার জুমার নামাজে নিউজিল্যান্ডের একটি মসজিদে ঢুকে খ্রীষ্টান সন্ত্রাসীরা নামজরত মুসলমানদের উপর গুলি করে। এতে অর্ধশত নামাজরত মুসলমান শহীদ হয়। আহত হয় আরো অনেক মুসলমান। এই ঘটনা সারা বিশ্বের মুসলমান শুধু নয় সকল মানবতাবাদী মানুষকে আহত করেছে। এই জঘন্য হত্যাকান্ডের নিন্দা জানাবার ভাষা আমাদের জানানেই।

আজ (১৬ মার্চ) বাদ আসর কক্সবাজার শহরের লালদীঘি পাড় জামে মসজিদ চত্ত্বরে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

আজিজুল হক ইসলামাবাদী আরো বলেন, বিশ্বব্যাপী কথিত জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদের সাথে মুসলমানদের কোন সম্পর্ক না থাকলেও এক শ্রেণীর মুসলিম বিদ্বেষী মিডিয়া ও বুদ্ধিজীবী অব্যাহতভাবে মুসলমানদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাস-জঙ্গীবাদের তকমা লাগিয়ে প্রচার করে আসছে। নিউজিল্যান্ডের সেই খুনি একজন খ্রীষ্টান সন্ত্রাসী হলেও তার বিরুদ্ধে বিশ্ববিবেক কার্যকর কোন ভূমিকা দৃশ্যমান হচ্ছেনা। তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী এই সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আমরা বিশ্ব সম্প্রদায়ের কার্যকর ভূমিকা কামনা করছি।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন, জেলা হেফাজতে ইসলামের সহ-সভাপতি হাফেজ মাওলানা ছালামতুল্লাহ।

বক্তব্য রাখেন, হেফাজতে ইসলাম কক্সবাজার জেলা শাখার সেক্রটারী মাওলানা ইয়াছিন হাবিব, হেফাজতে ইসলামের নেতা মাওলানা হাফেজ মুবিনুল হক, ইসলামী ছাত্রসমাজের কেন্দ্রীয় সহসভাপতি মাওলানা হাফেজ মুহাম্মদ আবুল মঞ্জুর, মাওলানা খালেদ সাঈফী, মাওলানা নুরুল হক চকোরী, মাওলানা আব্দুর রাজ্জাক, মাওলানা আতাউল্লাহ প্রমূখ নেতৃবৃন্দ।

সমাবেশ শেষে এক বিক্ষোভ মিছিল শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

কোন মন্তব্য নেই