“পড়বি তো পড় মালির ঘাড়ে”

0
.

কথায় আছে “পড়বি তো পড় মালির ঘাড়ে”। নগরীর কোতোয়ালী থানার কোর্ট বিল্ডিংস্থ পুলিশ ব্যারাকে ঢুকে ঘুমন্ত পুলিশ সদস্যদের ৬টি মোবাইল ফোন চুরি করে এবার ধরা পড়েছে এক পেশাদার চোর।

চুরি যাওয়া ৬টি মোবাইল ফোন থেকে ৫টি মোবাইল ফোন তার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার ২১ মে ভোরে এই চুরি সংগঠিত হওয়ার কয়েকঘন্টার মধ্যে অভিযান চালিয়ে পেশাদার চোর শহীদুল ইসলাম প্রকাশ শহিদ (৩২)কে কোতোয়ালী থানা পুলিশ নগরীর লালদীঘির পাড় এলাকা থেকে গ্রেফতার করে। পরে পুলিশ তার স্বীকারোক্তিতে কোর্টরোডস্থ নতুন আদালত ভবনের আউটার রোডের পানির হাউজের পাশে অস্থায়ী বসতঘর থেকে ৫টি মোবাইল সেট উদ্ধার করেছে।

কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মহসীন পাঠক ডট বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

কোতোয়ালী থানায় দায়ের হওয়া মামলার বাদী কনস্টেবল লিটন কান্তি দাশ জানান, ২১ মে ভোর আনুমানিক ৪টা ৫৩ মিনিটের দিকে কোর্ট বিল্ডিংস্থ পুলিশ ব্যারাক এবং এর পাশে স্থিত চায়ের দোকান হতে ৬টি মোবাইল চুরি ঘটনা ঘটে। পেশাদার চোর কৌশলে পুলিশ সদস্যদের ঘুমের মধ্যে রেখে এসব মোবাইল নিয়ে যায়। পরে আশেপাশের সিসিটিভি ক্যামেরা ফুটেজ দেখে চোরকে সনাক্ত করার পর রাতে কোতোয়ালী থানার লালদীঘির পাড় থেকে শহিদুল ইসলামকে আটক করা হয়।

আটক শহিদুল ইসলাম জেলার বাঁশখালী উপজেলার কাটুরিয়া এলাকার শাহ আলমের ছেলে। বর্তমানে নতুন আদালত ভবনের আউটরোডের পানির হাউজের পাশে অস্থায়ী বসতঘরে তার বাসবাস।

কোন মন্তব্য নেই