খান-কাপুরদের পেছনে ফেলে ফিটনেসে হিট নরেন্দ্র মোদী

0
.

ভারতের তারকা অভিনেতারা ফিট থেকে ৫০ পেরিয়েও বয়সটাকে আটকে দিয়েছেন ৩০-এর ঘরে। কিন্তু এই বড় বড় সিক্সপ্যাক-এইটপ্যাক সুপারস্টারদের পেছনে ফেলে ফিটনেসে সবার শীর্ষে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

সম্প্রতি দেশটির স্বাস্থ্য সংস্থা ‘জিঅক্যুআইআই’ এক সমীক্ষা চালিয়ে দেখেছে স্বাস্থ্য সচেতনতা ও ফিটনেসে প্রথম স্থানে রয়েছেন নরেন্দ্র মোদী।

তালিকায় মোদীর পর দ্বিতীয় স্থানে জনপ্রিয় অভিনেতা অক্ষয় কুমার ও তৃতীয় হয়েছেন যোগগুরু বাবা রামদেব। এরপরে রয়েছেন যথাক্রমে ধোনি, রণবীর সিং, করিনা কাপুর, টাইগার শ্রফ, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, বিরাট কোহলি আর দীপিকা পাড়ুকোন।

এবিষয়ে ‘জিঅক্যুআইআই’-এর প্রতিষ্ঠাতা এবং সিইও বিশাল গোন্ডল জানান, আমাদের দেশে কোন কোন বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব স্বাস্থ্য সচেতন সেই খবর প্রকাশ্যে আনতেই এই সমীক্ষা চালানো হয়।

তিনি বলেন, নিজের সঙ্গে সঙ্গে মোদী দেশবাসীর স্বাস্থ্য নিয়ে বরাবরই সজাগ থাকেন। আন্তর্জাতিক যোগ দিবস চালু করার পেছনে মোদীর ভূমিকা যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ। ৬৮ বছর বয়সেও তিনি ফিট।

নরেন্দ্র মোদী সুস্থতার জন্য নিয়মিত যোগব্যায়াম করেন। নিরামিষ খেয়েই দিব্যি ভালো রয়েছেন তিনি। আর নিয়মতান্ত্রিক জীবন যাপনের ফলেই কোনো দিন ডাক্তার বা ব্যয়বহুল ওষুধের ওপর নির্ভর করতে হয়নি তাকে।

ফিটনেসের সঙ্গে তার ফ্যাশন সচেতনতাও লক্ষ করার মতো। সব সময়ই অনুষ্ঠান বুঝে সঠিক-মানানসই পোশাকই বেছে নেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

কোন মন্তব্য নেই