৯ দফা দাবীতে সীতাকুণ্ডে জুট মিলস শ্রমিক লীগের সমাবেশ

0
.

সীতাকুণ্ড (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ
জাতীয় মজুুরী কমিশন-২০১৫  বাস্তবায়ন, পাট খাতে প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ, বকেয়া মজুরি, বেতন পরিশোধ, মজুরি কমিশন কার্যকর ও প্রতি সপ্তাহের মজুরি প্রতি সপ্তাহে প্রদানসহ ৯ দফা দাবিতে সমাবেশ করেছে বাংলাদেশ পাটকল শ্রমিক লীগ।

আজ শনিবার সকাল ১০ টায় সীতাকুণ্ডের কুমিরাস্থ গুল আহমদ জুট মিলস এবং বিকাল ৪টায় বার আউলিয়াস্থ হাফিজ জুট মিলস প্রাঙ্গণে উক্ত শ্রমিক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

গুল আহমেদ জুট মিলস শ্রমিক লীগের সভাপতি আবদুল জাব্বারের সভাপতিত্বে এবং শ্রমিক নেতা আবু তাহেরের সঞ্চলনায় শ্রমিক সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পাট কল শ্রমিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সরদার মোতাহার উদ্দিন। এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শ্রমিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি মাহবুবুল আলম,ফরাজী নুজরুল ইসলাম, হেমায়েত উদ্দিন আজাদী, জাহাঙ্গীর হোসেন।

হাফিজ জুট মিলস প্রাঙ্গনে বিকাল ৪ টায় অনুষ্ঠিত শ্রমিক সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন হাফিজ জুট মিলস সিবিএ সভাপতি আবু তাহের।

.

সমাবেশে বক্তারা বলেন,বর্তমানে দ্রব্য মূল্যের বাজারে উর্দ্ধগতিতে জাতীয় মুজরী, স্কেল, ২০১০ অনুযারী শ্রমিকেরা যে মুজরী পাচ্ছে তা দ্বারা জীবন জীবিকা নির্বাহ করা কোন ভাবেই সম্ভব হচ্ছে না। শ্রমিকরা পরিবার-পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে এবং ছেলে-মেয়েদের লেখাপড়ার ও চিকিৎসা ব্যয় চরমভাবে ব্যহত হচ্ছে, বিনা চিকিৎসায় অসুস্থ হয়ে শ্রমিকদের মৃত্যুর হার বৃদ্ধি পাচ্ছে, কর্মচারীদের ৩/৪ মাসের বেতন এবং শ্রমিকদের ১০/১২ সাপ্তাহের মজুরী বকেয়া পড়েছে। দীর্ঘদিনের বকেয়া মজুরি, পিএফের টাকা প্রদান ও বদলি শ্রমিকদের স্থায়ীকরণ, মজুরি কমিশনসহ তাদের ৯ দফা ন্যায্য দাবি না মানায় তীব্র সমালোচনা করে পাটমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেন শ্রমিকরা। অচিরেই দাবি না মানলে কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেন শ্রমিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

কোন মন্তব্য নেই