বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকীতে বিজিএমইএ’র দো’আ ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত

0
.

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর জন্ম শতবার্ষিকী উপলক্ষে খতমে কোরআন, দো’আ ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করেছে পোষাক মালিকদের সংগঠন বিজিইএমএ চট্টগ্রাম।

আজ মঙ্গলবার বিকালে বিজিএসইএ চট্টগ্রাম কার্যালয়ে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

দো’আ ও মিলাদপূর্ব আলোচনায় বক্তব্য রাখেন বিজিএমইএ’র প্রথম সহ-সভাপতি মোহাম্মদ আবদুস সালাম। তিনি জাতির জনক এবং ৭৫’র কাল রাতে তাঁর প্রয়াত পরিবারবর্গের রুহের মাগফেরত কামনা করে বলেন- আমাদের মহান নেতার নির্দেশিত আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে আমরা স্ব স্ব অবস্থান থেকে দেশকে এগিয়ে নেব সমৃদ্ধির দিকে। বঙ্গবন্ধু’র সংগ্রামী জীবনের উপর আলোকপাত করে তিনি বলেন হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী স্বাধীনতার স্থপতি শেখ মুজিব- সকল অন্যায়, অবিচার ও দূর্নীতির বিরুদ্ধে আজীবন সংগ্রাম করে গেছেন। তিনি শ্রদ্ধাভরে জাতির জনককে স্মরণ করে বলেন- বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে বাংলাদেশের জন্ম হতো না; আর বাংলাদেশের জন্ম না হলে ৩৫ বিলিয়ন ডলারের তৈরী পোশাক রপ্তানীর গর্বিত মালিক আমরা হতে পারতাম না। তিনি ছিলেন নিপিড়ীত মানুষের নেতা। একটি সুখী সমৃদ্ধ সোনার বাংলা গড়ে তোলাই ছিল তাঁর জীবনের একমাত্র স্বপ্ন। তিনি শুধু বাংলাদেশেরই মহানায়ক নন, স্বাধিকার আন্দোলনের নেতৃত্ব দিয়ে বিশ্বনায়কে পরিনত হয়েছেন, আমরা তাঁর জন্য গর্বিত। জাতির জনকের আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে আমরা পোশাক শিল্পের মালিকগণ তাঁরই সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাছিনার নেতৃত্বে উন্নত ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করছি।

এর আগে স্বাগত বক্তব্য রাখেন- বিজিএমইএ’র সহ-সভাপতি এ.এম. চৌধুরী, সেলিম।

আরো উপস্থিত ছিলেন বিজিএমইএ’র পরিচালকবৃন্দ সর্বজনাব অঞ্জন শেখর দাশ, মোহাম্মদ আতিক, খন্দকার বেলায়েত হোসেন, এনামুল আজিজ চৌধুরী, প্রাক্তন ১ম সহ-সভাপতিবৃন্দ শাহাবুদ্দিন আহমেদ, এস.এম. আবু তৈয়ব, নাসিরউদ্দিন চৌধুরী, প্রাক্তন সহ-সভাপতি মোহাম্মদ ফেরদৌস, প্রাক্তন পরিচালকবৃন্দ সর্বজনাব একেএম ছালেহ উদ্দিন, হেলাল উদ্দিন চৌধুরী, এমদাদুল হক চৌধুরী, এমডি.এম. মহিউদ্দিন চৌধুরী, সৈয়দ মোহাম্মদ তানভীর সহ পোশাক শিল্পের মালিকবৃন্দ ও বিজিএমইএ’র কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ।

আলোচনা পর্ব পরিচালনা করেন- প্রাক্তন পরিচালক ও ধর্ম বিষয়ক স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান সাইফ উল্ল্যাহ মনসুর।

মিলাদ ও দো’আ মাহফিল পরিচালনা করেন- আলহাজ্ব মাওলানা জাহাঙ্গীর আলম।

কোন মন্তব্য নেই