একই রশিতে ঝুলে আত্মহত্যা প্রেমিক যুগলের

4
.

দীর্ঘদিন ধরে প্রেমের সম্পর্ক ছিল তাদের দুজনের। দুই পরিবারের বিয়ের জন্য আলোচনা করেছিল তারা। কিন্তু ছেলের অভিভাবক প্রেমের সম্পর্ক মেনে না নেয়ায় আটকে ছিল পরিণতি।

এক পর্যায়ে আলাদা স্থানে দুজনকে বিয়ে দিয়ে দূরে সরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করেছিল দুই পরিবার। এমন সিদ্ধান্ত মেনে নিতে পারেনি প্রেমিক যুগল। তাই একই রশিতে ঝুলে আত্মহত্যা করেছে তারা।

এমন ঘটনা ঘটেছে ঠাকুরগাঁওয়ে রাণীশংকৈল উপজেলায়। বুধবার গভীর রাতে কাশিপুর এলাকায় গোরস্থানের পাশের আমগাছে দড়িতে ঝুলন্ত প্রেমিক যুগলের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এই প্রেমিক যুগল হলো রাণীশংকৈল উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের ছয়ভাগিয়া গ্রামের কুণ্ঠ কুমার পালের মেয়ে ইচ্ছা রানী পাল (২১) ও বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের বেউরঝাড়ী নয়াপাড়া গ্রামের খই খোয়া পালের ছেলে সুনীল পাল (২৪)।

সুনীলের পরিবারের লোকজন জানায়, দুদিন ধরে বাড়িতে ফেরেনি সুনীল পাল। বুধবার রাতে রাণীশংকৈল থানা থেকে তাদেরকে ফোনে খবর দিলে সুনীলের খোঁজ পায় তার পরিবার।

এদিকে মেয়ের পরিবারের লোকজন জানিয়েছে, তারা প্রেমের সম্পর্ক মেনে নিয়েছিলো। কিন্তু ছেলের পরিবারের লোকজন বিষয়টি মেনে না নেয়ার এমন ঘটনা ঘটেছে।

রাণীশংকৈল থানার অফিসার ইনর্চাজ (তদন্ত) খায়রুল আলম ডন বলেন, বুধবার গভীর রাতে মরদেহ উদ্ধার হয়। বৃহস্পতিবার সকালে ঠাকুরগাঁও মর্গে ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মেয়ের বাবা রাণীশংকৈল থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করেছেন। ময়না তদন্ত প্রতিবেদন হাতে এলেই মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।