যত খুশি AC চালান, ইলেকট্রিক বিল বাড়বে না! শুধু মেনে চলুন এই কয়েকটা কৌশল

0
.

♦ ঘরে বাইরে প্রচণ্ড গরম। সারাদিনে বাইরে কাজের শেষে শান্তিতে ঘুমোতে ঘরে এসি লাগাতে চান অনেকে। কিন্তু এখন বাইরে যা গরম, সারাটাদিনই অনেকে এসি চালিয়ে রাখছেন ৷ এতে কারেন্টের বিলটা যা আসছে তাতে চোখ কপালে ওঠার জোগাড় ৷

♦ তবে আপনি জানেন কি? কিছু নিয়ম মেনে যদি আপনি এসি চালান তবে বিদ্যুৎ বিল কম আসবে।

♦ শুধুমাত্র নিয়ম না মানার কারণে আপনার বিদ্যুৎ বিল বেশি আসবে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এসি কেনার আগে সর্তক হতে হবে। মনে রাখবেন সব সময় ফাইভ স্টার এসি কেনার দরকার নাই। এসি যদি বছরে গড়ে ১০০০ ঘণ্টার কম চলে এবং বিদ্যুতের ইউনিট পিছু খরচ যদি ৫ টাকা হয় তবে ৩ স্টার স্প্লিট এসি কিনলেই চলবে।

♦ কিন্তু এসি যদি গড়ে বছরে ১০০০ ঘণ্টা থেকে ১৫০০ ঘণ্টা চলে তবে ফাইভ স্টার স্প্লিট এসি কেনাই ভাল।

♦ এ বার জানা জানা যাক যে ভাবে এসি চালালে কমবে বিদ্যুৎ বিল-

♦ এসির টেম্পারেচার অবশ্যই ২৪ থেকে ২৬ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডের মধ্যে রাখতে হবে। ২. রাতে স্লিপ মোডে এসি চালান। বিদ্যুৎ অপচয় কমবে।

♦ ভোরের দিকে এসি বন্ধ করে দেওয়ার অভ্যাস তৈরি করুন।

♦ রাতে ৫ ঘণ্টা এসি চললে, পরবর্তী কিছু ক্ষণ এসি ছাড়া থাকাই যায়।

♦ এসি বেশি পুরনো হয়ে গেলে তা বদলে নিন। পুরনো এসিগুলো সে রকম বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী নয়।

♦ এসির ফিল্টারটি নির্দিষ্ট সময় অন্তর পরিষ্কার করতেই হবে।

♦ এসিতে টাইমার ব্যবহার করুন যাতে ঘর ঠাণ্ডা হয়ে গেলে আপনা থেকেই বন্ধ হয়ে যায় যন্ত্রটি।

♦ আপনার সিলিং ফ্যানটিকেও ব্যবহার করুন এসির সঙ্গে পাল্লা দিয়ে। দিনের বেলা ঘরে তাপ ঢোকার উৎসগুলিকে বন্ধ করুন।

কোন মন্তব্য নেই