কফি কফি…

0
.

আমাদের সারাদিনের ক্লান্তি কাটিয়ে এক কাপ লাটে, এক্সপ্রেসো, মোচা কিংবা ক্যাপাচিনো চাঙ্গা করে দিতে পারে মুহূর্তেই।

কফি আমাদের পছন্দের পানীয়, এটির স্বাস্থ্যগুণও কিন্তু কম নয়। নিয়মিত কফি পানে-
• মানসিক চাপ কমাতে সাহায্য করে
• ত্বকের ক্যান্সারের ঝুঁকি কমে
• দিনে চার বা তার বেশি কাপ কফি পানে টাইপ টু ডায়াবেটিস হওয়ার শঙ্কা ৫০ ভাগ কমে যায়।
• প্রতিদিন ৩ কাপ কফি পান করলে মনে রাখার ক্ষমতা
• কফি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ। যদিও ফলমূল এবং শাকসবজিতেও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে, তবে তার কোনোটিই কফির ধারকাছে নেই।

ঘরে কফি তৈরি করবেন যেভাবে:

কোল্ড কফি
২ কাপ ঠাণ্ডা দুধ, ৩ চা চামচ ইনস্ট্যান্ট কফি পাউডার, ২ টেবিল চামচ চিনি, ১ কাপ ঠাণ্ডা পানি, ২ টেবিল চামচ ক্রিম, পরিমাণমতো বরফকুচি।

কিছু পানি নিয়ে কফি পাউডার ও চিনি ভালোভাবে মিশিয়ে নিন। পানি গরম করে মিশ্রণটি দিয়ে দিন। এরপর নামিয়ে ঠাণ্ডা করুন। মিশ্রণটি ব্লেন্ডারে নিয়ে এর সঙ্গে দুধ মিশিয়ে ব্লেন্ড করুন। ক্রিম ও বরফ কুচি দিয়ে আবার ব্লেন্ড করুন। কাপে নামিয়ে কিছুটা কফি গুঁড়ো দিয়ে পরিবেশন করুন।

ইনস্ট্যান্ট কফি

কফি এক চা চামচ, চিনি এক চা চামচ বা পরিমাণমতো, কফিমেট তিন চা চামচ, পানি পরিমাণমতো

যেভাবে তৈরি করবেন

চুলায় একটি পাত্রে পানি ফুটিতে নিন। এবার মগে কফি, চিনি ও কফিমেট ভালো করে মিশিয়ে নিন। এবার একটু গরম পানি দিয়ে নাড়তে থাকুন। নাড়তে নাড়তে যখন সোনালি বর্ণ ও আঠালো ভাব হবে, তখন মগে কফি মিশ্রণটির মধ্যে ফুটানো পানি দিন।

খুব ভালোভাবে মিশিয়ে নিলেই তৈরি আপনার ইনস্ট্যান্ট কফি।

অতিরিক্ত কফি পান করলে, অস্থিরতা, অস্বস্তি দেখা দেয়ার পাশাপাশি হৃদস্পন্দনও বেড়ে যেতে পারে। তাই পরিমিত কফি পান করে সুস্থ থাকুন।

কোন মন্তব্য নেই