কোতোয়ালীতে ইয়াবাসহ কওমী মাদ্রাসার দুই ছাত্র আটক

2
.

নগরীর কোতোয়ালী থানার টেরিবাজার এলাকার একটি আবাসিক হোটেল থেকে ১৪ হাজার পিস ইয়াবাসহ দুই মাদ্রাসা ছাত্রকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো,  আবু তাহের (২৪) ও মো. এহছান উল্যাহ (২০)। তারা পাঁচলাইশ শুলকবহর এলাকার জামেয়া মাদানিয়া মাদ্রাসার ছাত্র।

আজ মঙ্গলবার (১০ সেপ্টেম্বর) ভোরে টেরিবাজার এলাকার হোটেল আল ইমামের ৭১৯ নম্বর কক্ষ থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃত তাহের কক্সবাজারের উখিয়ার ৫ নম্বর ওয়ার্ডের হাজীপাড়ার হলুদিয়া পালংয়ের আব্দুর রহিম ওরফে রহিম উল্লাহর ছেলে। এহছান বান্দরবানের লামা থানার ফাসিয়াখালী ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের শামুকছড়া এলাকার নুরুল হকের ছেলে ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসীন পাঠক ডট নিউজকে বলেন,  রাতে হোটেল আল ইমামের ৭১৯নং রুমের ভিতর ০২ জন লোক অবৈধ মাদকদ্রব্য তথা ইয়াবা ট্যাবলেট সহ অবস্থান করিতেছে। উক্ত সংবাবাদের ভিত্তিতে এএসআই মো. জয়নাল আবেদীন, মো. নাছের আহাম্মদ ও সঙ্গীয় ফোর্স অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করেন।

তিনি আরো বলেন, অভিযানে কাপড়ের ছোট ক্যারিয়ার ব্যাগে সাদা স্কচটেপ মোড়ানো ৭ বান্ডিলে ১০ প্যাকেট করে মোট ৭০ প্যাকেটে ১৪ হাজার পিস এ্যামফিটামিনযুক্ত গোলাপি রঙের ইয়াবা পাওয়া যায়। ২ কেজি ৪০০ গ্রাম ওজনের এসব ইয়াবার দাম প্রতিটি ৩০০ টাকা করে ৪২ লাখ টাকা। তাদের কাছে আবু তাহেরের নামে ইস্যু হওয়া একটি জাতীয় পরিচয়পত্র এবং আল জামেয়া আল ইসলামিয়া, পটিয়ার আইডি কার্ড পাওয়া গেছে।

2 মন্তব্য

  1. ওদের দেখে আমার তো বিশ্বাস হয় না ওরা ইয়াবা ব্যবসা করে কারণ বাংলাদেশের পুলিশ প্রশাসন কোন মাদ্রাসার ছাত্রদেরকে ভালো চোখে দেখেনা আমার মনে হয় ওদেরকে ইয়াবা নাম দিয়ে ফাঁসানো হয়েছে ওরা যদি ইয়াবা ব্যবসা করত তাহলে ইয়াবা সামনে নিয়ে ওদের ছবি উঠিয়ে সোশ্যাল মিডিয়াতে দিত আপনারা কি বলেন সকল সোশ্যাল মিডিয়া ফ্রেন্ডস